অবশেষে মায়ের সঙ্গে বাড়ি ফিরলো সুরাইয়া

গত ২৩ জুলাই মাগুরা জেলায় সরকার সমর্থিত ছাত্রলীগ ও যুবলীগের সংঘর্ষে, মায়ের গর্ভে গুলিবিদ্ধ শিশু সুরাইয়াকে ঢাকা মেডিকেল হাসপাতাল থেকে ছেড়ে দেয়া হয়েছে গতকাল।

আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে মাগুরায় ছাত্রলীগ ও যুবলীগের মধ্যে সংঘর্ষ চলাকালে গত মাসে মায়ের গর্ভে থাকা শিশুটি গুলিবিদ্ধ হয় এবং তার পিঠ দিয়ে বুলেট ঢুকে, বুক দিয়ে বেরিয়ে যায়। ফলে নির্দিষ্ট সময়ের প্রায় ছয় সপ্তাহ আগেই অস্ত্রোপচারের মাধ্যমে বের করে আনতে হয় শিশুটিকে।

আশঙ্কাজনক অবস্থায় শিশুটিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আনা হয়। পরে তার মা নাজমা বেগমকেও একই হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

হাসপাতালে আনার পর থেকে টানা তিন সপ্তাহ শিশুদের বিশেষ পরিচর্যা ইউনিটে চিকিৎসা দেয়ার পর গত রোববার শিশু সুরাইয়াকে তার মায়ের সাথে কেবিনে পাঠানো হয়।

শিশুটির শারীরিক সমস্যাগুলো সার্জারির মাধ্যমে সমাধান হলেও, তার চোখে গুলি লাগায় যে ক্ষত হয়েছে সে বিষয়ে আরও চিকিৎসা প্রয়োজন রয়েছে।

1689-02

শিশুটির বর্তমান পরিস্থিতি তুলে ধরে ডা. খালিদ হাসান মোল্লা বলেন, ‘পাঁচ দিন ধরে শিশুটি নিজেই মায়ের দুধ খাচ্ছে, হজম করতে পারছে, শরীরের তাপমাত্রা ধরে রাখতে পারছে এবং ক্ষতস্থান শুকিয়ে গেছে। শিশুটির ক্রমান্বয়ে ওজন বাড়ছে। জন্মের সময় শিশুটির ওজন ১৮শ’ গ্রাম ছিল; আর এখন প্রায় সাড়ে ২১শ’ গ্রাম।’

চিকিৎসকরা বলছেন, শিশুটির শারীরিক অবস্থা এখন সম্পূর্ণ সুস্থ হওয়ায় তাকে হাসপাতাল ছাড়ার ছাড়পত্র দেয়া হয়েছে।

***পীরগঞ্জ টোয়েন্টিফোরে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।***

***পীরগঞ্জ টোয়েন্টিফোরে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।***

Content Protection by DMCA.com

আপনার জন্য আরো কিছু খবর...